ঈদ আসলেই যে কাপড় আড়াই হাজার টাকা তা বিক্রি হচ্ছে পাঁচ হাজার টাকায় আপডেট: 13-06-2018   
ঈদ আসলেই কিছু মুনাফালোভী ব্যবসায়ী পণ্যের দাম বাড়ানোর উৎসবে মেতে ওঠে। দুই থেকে তিনগুণ দাম বাড়িয়ে মানুষের পকেট কাটে। এসব অভিযোগে উত্তরায় তিনটি কাপড়ের দোকানকে আড়াই লাখ টাকা জারিমানা করেছে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতর। এর মধ্যে ফড়িং ও অলনাকে এক লাখ টাকা করে এবং প্রজাপতিকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। বুধবার রাজধানীর উত্তরায় এলাকায় অভিযান চালিয়ে এ জরিমানা করা হয়। ফড়িং ও অলনার দোকানে যে কাপড়ের দাম আড়াই হাজার টাকা হওয়ার কথা তা বিক্রি করা হচ্ছে পাঁচ হাজার টাকায়। এই দ্বিগুণ দামে পণ্য বিক্রি করতে গিয়ে প্রতিষ্ঠান দুটি জরিমানা গুনলো ৪০ গুণ। অভিযান সার্বিক তদারকি করেন ঢাকা বিভাগীয় কার্যালয়ের উপ-পরিচালক (উপ-সচিব) মনজুর মোহাম্মদ শাহরিয়ার। আর পরিচালনা করেন অধিদফতরের ঢাকা জেলা অফিসের সহকারী পরিচালক আব্দুল জব্বার মণ্ডল। সার্বিক সহযোগিতা করে আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ান (এপিবিএন)-১ ও ১১ এর সদস্যরা। মনজুর মোহাম্মদ শাহরিয়ার বলেন, ঈদ আসলেই কিছু ব্যবসায়ী পণ্যের দাম ইচ্ছামতো বাড়িয়ে দেয়। আড়াই হাজার টাকার কাপড় বিক্রি করছে পাঁচ হাজার টাকা। এটি রীতিমতো ভোক্তার সঙ্গে ডাকাতি। বিদেশি ২৩ হাজার ৫০০ টাকার জামা বিক্রি করছে। কিন্তু আমদানির কোনো কাগজপত্র নেই। এসব অভিযোগে উত্তরায় তিনটি কাপড়ের দোকানকে মোট আড়াই লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। একই সঙ্গে প্রতিষ্ঠানগুলোকে সতর্ক করা হয়। পরবর্তীতে এ ধরনের অপরাধ করলে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে।
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ